করোনায় ডায়াবেটিস রোগীর শরীরে যেসব লক্ষণ দেখা দিতে পারে

0
618

করোনা ডায়াবেটিস রোগীর শরীরে মারাত্মক প্রভাব ফেলতে পারে। বিশেষজ্ঞদের মতে, ডায়াবেটিস রোগীদের ৩০ শতাংশেরও বেশি করোনা সংক্রমণের ঝুঁকি থাকে।

ডায়াবেটিসের কারণে শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কমে যায়। এর ফলে শরীরে পুষ্টির অভাব, রক্ত প্রবাহে দুর্বলতাসহ দীর্ঘমেয়াদি বিভিন্ন শারীরিক অসুস্থতা দেখা দেয়।

এজন্য করোনার শুরু থেকেই বিশেষজ্ঞরা ডায়াবেটিস রোগীদেরকে সতর্ক থাকার পরামর্শ দিয়ে আসছেন। তাই করোনাকালে ডায়াবেটিস রোগীদের শারীরিক বেশ কিছু লক্ষণের বিষয়ে নজর রাখতে হবে।

জেনে নিন করোনায় ডায়াবেটিস রোগীর শরীরে যেসব লক্ষণ দেখা দিতে পারে-

ত্বকে র‌্যাশ ও নখ-পা ফুলে যাওয়া

করোনা সংক্রমণের লক্ষণ হিসেবে ডায়াবেটিস রোগীর শরীরে র‌্যাশ, চুলকানিসহ ক্ষতের সৃষ্টি হতে পারে। এ ছাড়াও নখ ও পা ফুলে যেতে পারে।

নিউমোনিয়া

করোনার প্রভাবে ডায়াবেটিস রোগীর নিউমোনিয়া হতে পারে। যা আক্রান্ত রোগীর শরীরে মারাত্মক প্রভাব ফেলতে পারে।

ডায়াবেটিস রোগীর শরীর রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কম থাকার কারণে করোনাভাইরাস আক্রান্তের ফুসফুসে আক্রমণ চালাতে পারে।

অক্সিজেনের মাত্রা কমে যাওয়া

করোনাভাইরাস ফুসফুসে ধ্বংসযজ্ঞ চালানোর কারণে ডায়াবেটিস রোগীর শ্বাসকষ্ট বেড়ে যায়। এর ফলে শরীরে অক্সিজেনের মাত্রা কমতে শুরু করে।

শ্বাসকষ্টের পাশাপাশি বুকে ব্যথা, হাইপোক্সিয়ার কারণে ঠোঁট-নখ নীলচে হয়ে যেতে পারে। এমন সময় রোগীকে অক্সিজেন দিতে হবে।

রক্তে গ্লুকোজ কমে যাওয়া

করোনায় আক্রান্ত ডায়াবেটিস রোগীর ক্ষেত্রে হঠাৎ হাইপোগ্লাইসেমিয়া দেখা দিতে পারে। এর অর্থ হলো- রক্তের গ্লুকোজ বা শর্করা হঠাৎ নেমে যাওয়া। হাইপো নামেও যা পরিচিত।

ডায়াবেটিসের রোগীদের জন্য এটি একটি বিভীষিকা। গবেষণা বলছে, করোনা ছাড়াও বেশিরভাগ ডায়াবেটিকরা জীবনে এক বা একাধিকবার এই অভিজ্ঞতার সম্মুখীন হন।

এমন পরিস্থিতিতে করোনাভাইরাস শরীরে মারাত্মক প্রভাব ফেলে। তাই করোনায় আক্রান্ত হলে ডায়াবেটিস রোগীর সবসময় রক্তে গ্লুকোজের মাত্রা পরিমাপ করতে হবে।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে