করোনা টিকা নেওয়ার পর রক্ত জমাট বেঁধে ইতালিতে কিশোরের মৃত্যু

0
703

করোনাভাইরাস প্রতিরোধে টিকা নেওয়ার পর শরীরে রক্ত জমাট বেঁধে ইতালিতে এক কিশোরের মৃত্যু হয়েছে। গত বৃহস্পতিবার (১০ জুন) মারা যান তিনি। মৃত ওই কিশোর অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার তৈরি করোনা টিকা নিয়েছিলেন। এরপরই ৬০ বছরের নিচে সবার জন্য এই সংস্থার টিকা প্রয়োগ স্থগিত করেছে দেশটি। বার্তাসংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, করোনা টিকা নেওয়ার পর শরীরে রক্ত জমাট বেঁধে মারা যাওয়া ওই কিশোরের নাম ক্যামিলা ক্যানেপা। ১৮ বছর বয়সী ওই কিশোর গত ২৫ মে অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার তৈরি করোনা টিকা নিয়েছিলেন। এরপরই তার শরীরে বিরল প্রকৃতির রক্ত জমাট বাঁধার উপসর্গ দেখা দেয় এবং গত বৃহস্পতিবার তিনি মারা যান।

এদিকে সকল বয়সের মানুষের জন্য অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার তৈরি করোনা টিকা ব্যবহার নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করা হলেও সেটা গুরুত্ব না দিয়ে টিকাদান কর্মসূচি চালিয়ে যাওয়ায় দেশটির মিডিয়া ও রাজনীতিকদের সমালোচনার মুখে পড়েছে ইতালির সরকার।

এরপরই অ্যাংলো-সুইডিশ এই সংস্থার তৈরি করোনা টিকা ব্যবহারে বিধিনিষেধ আরোপ করে ইতালি। শুক্রবার দেশটির সরকার জানায়, এখন থেকে ৬০ বছরের বেশি বয়সীদের মধ্যেই কেবল অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা প্রয়োগ করা হবে। ইতালির স্পেশাল কোভিড কমিশনার ফ্রান্সিসকো ফিগলিউলো সাংবাদিকদের জানিয়েছেন, ‘এখন থেকে অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা কেবল ৬০ বছরের বেশি বয়সীদের মধ্যেই ব্যবহার করা হবে।’

অন্যদিকে একই সংবাদ সম্মেলনে ইতালির প্রধান মেডিকেল উপদেষ্টা ফ্রাংকো লোকাতেল্লি জানান, ৬০ বছরের কম বয়সী যেসব ব্যক্তি ইতোমধ্যেই অ্যাস্ট্রাজেনেকা টিকার প্রথম ডোজ নিয়েছেন, বর্তমান পরিস্থিতিতে তাদেরকে অন্য কোনো সংস্থার তৈরি টিকার দ্বিতীয় ডোজ দেওয়া হবে। অ্যাস্ট্রাজেনেকা অবশ্য এ বিষয়ে এখনও কোনো মন্তব্য করেনি।

ইউরোপের অন্যান্য দেশের মতো গত মার্চে রক্ত জমাট বাঁধা ইস্যুতে অ্যাস্ট্রাজেনেকা টিকার প্রয়োগ স্থগিত করে ইতালি। বিশেষ করে অল্পবয়সীদের মধ্যে টিকা প্রয়োগ বন্ধ রাখা হয়েছিল। পরে ইউরোপীয় ওষুধ নিয়ন্ত্রক সংস্থার পক্ষ থেকে সুপারিশ করার পর দেশটিতে ফের এই সংস্থার টিকা প্রয়োগ শুরু হয়। সূত্র: রয়টার্স

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে