কারো কারো বেশি শীত লাগে কেন?

0
64

শীত বুঝি চলেই এল। ঠান্ডা বাতাস আর হিম সবাইকে গরম কাপড় পরতে উৎসাহ দিচ্ছে।এরই মধ্যে আবহাওয়ার পারদ নিচের দিকে নামতে শুরু করেছে। তবে এ সময়ে কারও কারও বেশি শীত অনুভূত হয়, আবার কারও অনেক কম। তবে ঠিক কী কারণে এমন হয়, আপনি জানেন কি? চলুন জেনে নিই বেশি শীত কেন লাগে….

জানা গেছে, কিছু কিছু রোগের কারণে কারও কারও শীত বেশি লাগে।

যখন কোনো হাইপোথাইরয়েডিজম ভুগে তখন তার শরীরে কম হরমোন তৈরি করে। আর এটার কারণে শীত বেশি লাগ।হাইপোথাইরয়েডিজমের অন্যান্য লক্ষণের মধ্যে রয়েছে: ক্লান্তি, বিষণ্ণতা, কোষ্ঠকাঠিন্য, মাসিক সমস্যা, কম হার্ট রেট ইত্যাদি।

রাইনাডের রোগ হলে আক্রান্ত ব্যক্তি ঠান্ডা বা চাপ অনুভব করে এবং তখন রক্তনালীগুলো সরু হয়ে যায়। এটি রক্ত ​​প্রবাহ হ্রাস করে এবং প্রভাবিত এলাকায় ঠান্ডা অনুভব করতে পারেন। এটি সাধারণত আঙুল এবং পায়ের আঙুলের ধমনীকে প্রভাবিত করে।

মৌসুম পরিবর্তনের সাথে সাথে আমাদের বিভিন্ন রোগ দেখা দেয়। আর এসব রোগে আক্রান্ত হলে শীত শীত লাগে। অনেক ক্ষেত্রে জ্বর আসার সময় কাঁপুনিও হয়।

ভিটামিনের অভাবে পায়ে শীত লাগা, পা স্পর্শ করে মনে হচ্ছে, পা তেমন ঠান্ডা নয়। এ রকম হয়।রক্তস্বল্পতায় ভুগলে অনেকের হাতে-পায়ে বেশি শীত বোধ হয়।

দীর্ঘমেয়াদি কিডনির রোগে আক্রান্ত ব্যক্তিও অল্প শীতেই কাবু হতে পারেন। এ রোগে রক্তস্বল্পতাও হয়, যেটি এমনিতেই বেশি শীত লাগার কারণ।

সূত্র: হেলথলাইন

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে