বিদেশফেরতদের করোনামুক্ত সনদ বাধ্যতামূলক হচ্ছে

0
419

বিদেশফেরত যাত্রীদের জন্য কভিড-১৯ ‘নেগেটিভ’ সনদ আবার বাধ্যতামূলক করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক। কভিড-১৯ নেগেটিভ সনদ না আনতে পারলে ১৪ দিন বাধ্যতামূলক কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হবে বলে জানিয়েছেন তিনি। খুব শিগগিরই এ-সংক্রান্ত পরিপত্র জারি হবে বলে জানা গেছে।

গতকাল কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালে এক অনুষ্ঠানে জাহিদ মালেক বলেন, বিভিন্ন দেশে সংক্রমণ আবার বাড়ছে, এর মধ্যেই বিদেশ থেকে মানুষ আসছে, অনেকে দেশের বাইরে যাচ্ছে। ভাইরাসের বিস্তার রোধেই করোনাভাইরাস পরীক্ষার সনদ বাধ্যতামূলক করা হয়েছে। আমাদের একটা নিয়ম করা আছে, করোনাভাইরাস টেস্টের পর নেগেটিভ সার্টিফিকেট নিয়ে আসতে হবে। তা না হলে ১৪ দিন কোয়ারেন্টাইন বাধ্যতামূলক। বিমানবন্দর, স্থলবন্দর বা সমুদ্রবন্দর- যে পথেই দেশে আসুক। সব জায়গায় এই নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। সব জায়গায় কোয়ারেন্টাইনেরও ব্যবস্থা করা হয়েছে। রাজধানীর হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে সফরকালে স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. এ বি এম খুরশিদ আলম বলেন, বিদেশ থেকে আসা প্রত্যেক যাত্রীর জন্য করোনা নেগেটিভ সনদ বাধ্যতামূলক করছে সরকার। আশকোনা হজ ক্যাম্পের কোয়ারেন্টাইন সেন্টার এবং উত্তরা দিয়াবাড়িতে কভিড-১৯ নমুনা সংগ্রহ বুথ স্থাপন করবে স্বাস্থ্য অধিদফতর। বিমানবন্দরে মহাপরিচালকের সঙ্গে থাকা স্বাস্থ্য অধিদফতরের মুখপাত্র মো. হাবিবুর রহমান বলেন, ‘আসলে সার্টিফিকেট আগে থেকেই বাধ্যতামূলক করা হয়েছিল, তবে মাঝে একটি গ্যাপ পড়ে গেছে। নতুন সিদ্ধান্তে সেটি বন্ধ হবে। কয়েক দিনের মধ্যেই এ বিষয়ে পরিপত্র জারি করা হতে পারে।’

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে